প্রকাশিত: সকাল ১১ টা ৩৪ মিনিট, ২০ জুন ২০১৭, মঙ্গলবার | আপডেট: সকাল ১১ টা ৪৫ মিনিট, ২০ জুন ২০১৭, মঙ্গলবার
নাহিদা ইসলাম নাইস। সবাই তাকে ‘নাইস’ নামেই ডাকে। পড়াশুনার পাশাপাশি সুশিক্ষক হিসেবে সুশিক্ষায় স্বপ্নবুননের প্লাটফর্ম ড্রিম ডিভাইজার-এ ‘স্কুল-আড্ডা’, ‘সুস্বাস্থ্যের স্বপ্ন’ এবং ‘স্বপ্নের সূচনা’ প্রকল্প নিয়ে কাজ করছেন। স্বপ্নমাখা এই স্বপ্নকন্যার সাক্ষাৎকার নিয়েছেন ‘বিএমটিআই নিউজ’ এর চিফ রিপোর্টার আব্দুল্লাহ আল মামুন।

বিএমটিঅাই নিউজ: কেমন আছেন?
নাহিদা ইসলাম নাইস: জ্বী আলহামদুলিল্লাহ, সু-স্বপ্নকে সাথে নিয়ে বেশ ভালো আছি।

বিএমটিঅাই নিউজ: পড়াশোনা নিয়ে কিছু বলেন-
নাহিদা ইসলাম নাইস: পড়াশোনা করছি B.pharm নিয়ে সাউথইস্ট ইউনিভার্সিটিতে ( SEU) এ।
স্বপ্ন নিয়ে কথা বলছেন -নাইস



বিএমটিঅাই নিউজ: ছোট বেলার মজার কোনো গল্প –
নাহিদা ইসলাম নাইস: আসলে প্রত্যেক মানুষ তার জীবনের সবচেয়ে সেরা আর মজার সময়গুলো কাটায় তার ছোটবেলায়। আমিও ছোটবেলায় অনেক মজা করেছি। গল্প তো অনেক আছে তবে এর মধ্যে বিশেষ এক স্মৃতি শেয়ার করছি। আমি আমার বড় বোন কে খুব ভালোবাসি। আপুর এক জন্মদিনে কী উপহার দিবো এই কথা ভাবতে ভাবতে হঠাত করে মাথায় আসে যে, আপু ভীষণ ফুল পছন্দ করেন। তাই তাকে আমার ফুল-ই দিতে হবে। যেই কথা সেই কাজ। রংপুর ক্যান্টনমেন্ট এর বাসার কাছেই এক বিরাট নার্সারি ছিলো। আমি আর বান্ধবী চুপ করে নার্সারি তে ঢুকে যেই ফুল গাছ টায় হাত দিয়েছি অম্নি মালিকের বউ হাজির। আমাদের দুজনকে ধরে নিয়ে অনেক ভয় দেখিয়েছিলেন তারা। কিন্তু তারপর আবার বুঝিয়ে আমাদের দুই বান্ধবী কে ছেড়ে দিয়েছিলেন। এরপর আর কোনো দিন আমি কাউকে না বলে কারও গাছে হাত দেই নি।

বিএমটিঅাই নিউজ: ‘সুস্বাস্থ্যের স্বপ্নে’ নিয়ে কিছু বলেন –
নাহিদা ইসলাম নাইস: “Dream Deviser” একটি সুশিক্ষার প্ল্যাটফর্ম। আর এ প্ল্যাটফর্ম এর সব কিছুই অন্য সবার থেকে আলাদা। এখানকার সুশিক্ষকরা সব সময় চেষ্টা করেন একটু ভিন্নভাবে শেখাতে। আর “সুস্বাস্থ্যের স্বপ্নে” আয়োজনটি তার ব্যতিক্রম নয়। প্রতি রবি-মঙ্গল-শুক্রবার রাত ১০.০০ টায় ফেসবুক লাইভে এ আড্ডা অনুষ্ঠিত হয়। যেখানে আমি একজন সুশিক্ষক হিসেবে অন্যদের আড্ডাচ্ছলে সু-স্বাস্থ্য নিয়ে বিভিন্ন পরামর্শ এবং তাদের সচেতন করার চেষ্টা করি। আশা করছি আয়োজনটি সকলের ভালো লাগবে এবং সবাই উপকৃত হবেন।


বিএমটিঅাই নিউজ: আপনার স্বপ্ন কী?
নাহিদা ইসলাম নাইস: আমার স্বপ্ন একজন আইকনিক ব্যাক্তি হিসেবে নিজেকে গড়ে তোলা।

বিএমটিঅাই নিউজ: ‘স্বপ্নের সূচনা’ নিয়ে জানতে চাই – নাহিদা ইসলাম নাইস: প্রতিটা মানুষের স্বপ্ন শুরু হয় তার প্রথম জীবন অর্থাৎ শৈশবকালে। তাই এসময়েই যদি তাদের সঠিক দিক নির্দেশনা এবং সঠিক প্রেরণা দেয়া হয় তাহলে আমার বিশ্বাস বাংলাদেশের প্রতিটা শিশু পরবর্তীতে একজন সুশিক্ষিত মানুষ হিসেবে গড়ে তুলবে। তাই আমি এই বাচ্চা গুলোর স্বপ্ন নিয়ে কাজ করবো…তাদের স্বপ্ন গুলোকে গুছিয়ে একটি সঠিক পথে সঠিক ভাবে তাদের নিজের প্রতিভাগুলোকে চর্চা করাও অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ। মূলত আমার টার্গেট থাকবে ৫-১৬ বছররের বাচ্চাগুলো।

বিএমটিঅাই নিউজ: ফার্মেসি বিভাগ নিয়ে কিছু বলেন-
নাহিদা ইসলাম নাইস: চিকিৎসা বিজ্ঞানের একটা বড় অংশ এই ফার্মাসি বা ওষুধশিল্প। যার মাধ্যমে একজন মানুষ সরাসরি চিকিৎসক এর ভূমিকা পালন করতে না পারলেও তার সমভাবে মানুষকে সেবা প্রদান করতে পারেন কারণ শিক্ষার এ বিভাগটি শিক্ষার্থীকে নানা রকম প্রতিষেধক এর পাশাপাশি নানা রকম রোগ নিয়ে গবেষণা করারও সুযোগ করে দেয়।
সু-স্বাস্থ্যের স্বপ্ন নিয়ে পরামর্শ দিচ্ছেন- নাইস



বিএমটিঅাই নিউজ: ফার্মেসিতে ভর্তির প্রক্রিয়া সম্পর্কে বলেন-
নাহিদা ইসলাম নাইস: একজন শিক্ষার্থী যদি এ বিভাগে পড়াশোনা করতে চান তবে তাকে এস এস সি এবং এইচ এস সি দুটোই বিজ্ঞান বিভাগ থেকে পড়াশোনা করতে হবে । এইচ.এস.সি’র ফল প্রকাশের পরপর ই তাকে বিভিন্ন সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় গুলোতে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে । সেখানে তারা তাদের নিজ নিজ মেধা অনুযায়ী নিজেদের জায়গা করে নিতে পারবেন। এছাড়াও পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় এর পাশাপাশি নানা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পড়াশুনা করতে পারেন। আর বাংলাদেশের বাহিরে এই বিভাগটির চাহিদা প্রচুর। তাই সুযোগও বেশি। একজন শিক্ষার্থী চাইলে তার গবেষণা’র অংশটি দেশের বাহিরে থেকে করতে পারেন।

বিএমটিঅাই নিউজ: ফার্মেসিতে পড়াশুনা করে কোথায় কাজের সুযোগ বেশি-
নাহিদা ইসলাম নাইস: আসলে একজন ফার্মেসি বিভাগের শিক্ষার্থীদের মূলত রসায়ন নিয়ে কাজ করতে হয় বেশী। তাই নানা ওষুধ শিল্প প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি নানা শিল্প প্রতিষ্ঠান গুলোতে তারা নিজেদের জায়গা করে নিতে পারেন খুব সহজে। এছাড়াও তারা অন্যান্য বিভাগ গুলোতেও নিজেদের প্রতিষ্ঠিত করতে পারেন।


বিএমটিঅাই নিউজ: ‘ড্রিম ডিভাইজার’ নিয়ে আপনার স্বপ্ন কি-
নাহিদা ইসলাম নাইস: সুশিক্ষার প্ল্যাটফর্ম টিকে বিশ্ব দরবারে ছড়িয়ে দিতে চাই। বিশ্বের সব স্বপ্নবাজদের প্লাটফর্ম হবে এই ড্রিম ডিভাইজার।

বিএমটিঅাই নিউজ: ‘সুস্বাস্থ্যের স্বপ্নে’ আপনার এই প্রকল্পকে কিভাবে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে দিতে চান–
নাহিদা ইসলাম নাইস: একজন মানুষ শারীরিক ভাবে ভালো থাকলেই কেবল তার স্বপ্ন পূরণ সম্ভব বলে আমি মনে করি। আর আমার প্রকল্পটি আমি এখন শুরু করেছি সবচেয়ে পরিচিত যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে। এরপর আমি একজন স্পিকার হিসেবে বিভিন্ন জায়গা গুলোতে এ বিষয়টি নিয়ে সচেতনতা আরও বাড়াতে চাই।

বিএমটিঅাই নিউজ: স্বপ্ন পূরণের জন্য আপনি কী করছেন- নাহিদা ইসলাম নাইস: আমি তো এখন পড়াশোনা করছি তাই স্বপ্ন পূরণের জন্য এখন আমি শিখছি। প্রতিদিন নতুন নতুন বিষয় শিখছি, জানছি এবং বই পড়ছি। যেহেতু আমি নিজেকে একজন আইকনিক স্পিকার হিসেবে দেখতে চাই তাই শুদ্ধ উচ্চারণের প্রতি একটু বেশি জোর দিয়ে শিখছি।


বিএমটিঅাই নিউজ: কোন বিষয়ে নিজেকে দক্ষ ও সফল ব্যক্তি হিসেবে দেখতে চান- নাহিদা ইসলাম নাইস: আমি চিকিৎসা বিজ্ঞানকে ঘিরেই একজন দক্ষ স্পিকার হিসেবে নিজেকে গড়ে তুলতে চাই।

বিএমটিঅাই নিউজ: আপনাকে অনেক ধন্যবাদ-
নাহিদা ইসলাম নাইস: আপনাকে এবং বিএমটিঅাই নিউজকেও অনেক বেশি ধন্যবাদ।



বিএমটিঅাই নিউজ/ এম সি
আপনার মন্তব্য
এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
২০ জানুয়ারি ২০১৮
বিত্রমটি আই নিউজ ডেস্ক
একটা নদী উপহার পেয়েছি রটনার মত ছড়িয়ে যাচ্ছে , গুজব না সত্যি ! আমার একটা নদী আছে যদিও আমি নদী চাইনি চেয়েছি চাঁদ , তবু নদীই পেলাম বিস্তারিত
২০ জানুয়ারি ২০১৮
বিত্রমটি আই নিউজ ডেস্ক
আশুলিয়ার নিশ্চিন্তপুর গ্রামের এক গৃহবধু দেবর ও ভাশুরের নির্যাতন, হয়রানিমূলক মামলাসহ বিভিন্ন কুৎসার হাত থেকে নিজের পরিবারের সদস্যদের বাঁচাতে সংবাদ সম্মেলন বিস্তারিত
২০ জানুয়ারি ২০১৮
বিত্রমটি আই নিউজ ডেস্ক
ড্রিম ডিভাইজারের নিজস্ব উদ্ভাবিত স্বপ্ন- সুশিক্ষা- সুযোগ মডেলে সুশিক্ষায় স্বপ্নবুননে সবাইকে উদ্বুদ্ধ করে। সুশিক্ষায় স্বপ্নবুননে বিশেষ আয়োজন হচ্ছে স্বপ্ন-আড্ডা। স্বপ্ন আড্ডার বিস্তারিত
© স্বত্ব বিএমটিআইনিউজ ২০১৫ - ২০১৭
সম্পাদক :
মিঞা মুজিবুর রহমান
নির্বাহী সম্পাদক : শাহআলম শুভ
৩৭৩,দিলু রোড (তৃতীয় তলা)মগবাজার, ঢাকা-১২১৭
ফোন: ০২৯৩৪৯৩৭৩, ০১৯৩৫ ২২৬০৯৮
ইমেইল:bmtinews@gamil.com